1. bappy.ador@yahoo.com : admin :
  2. salehbinmonir@gmail.com : News Editor : News Editor
হেফাজত ইসলামের আমির জুনায়েদ বাবুনগরী ও মহাসচিব নুর হোসেন কাসেমী - DeshBarta
সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ০৪:৪১ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
সাংবাদিক তাজ ফারাজুল ইসলাম চৌধুরী রচিত “যুগল গল্প”- বইয়ের মোড়ক উন্মোচন ময়মনসিংহে (বাকৃবি) এর আম বাগানে অটো চালক খুনের ঘটনায় গ্রেফতার ৪ গাইবান্ধার পলাশবাড়ী প্রেস ক্লাব এর নির্বাচনে পাতা সভাপতি ও রতন সাধারন সম্পাদক নির্বাচিত অস্ত্রসহ আটকের নাটক করে আটকের অভিযোগ এনে চাটখিলে যুবলীগ নেতার সংবাদ সম্মেলন বাংলাদেশ ডেন্টাল এসোসিয়েশনের যুগ্ম সম্পাদক ডা: বিশ্বজিত চৌধুরী স্মরণে শোক সভা অনুষ্ঠিত লায়ন্স ক্লাব অব চিটাগাং শতাব্দীর মাসিক সভা অনুষ্ঠিত। আইটি ট্রেনিং প্রকল্প প্রধানমন্ত্রীর অনন্য উপহার। প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমদ পলক এম পি। মাদারবাড়ী শোভনীয়া ফুটবল একাডেমি শুভ উদ্ধোধনী ও গুনিজন সংর্বধনা অনুষ্টান সম্পন্ন। ক্ষতিগ্রস্থ ক্ষুদ্র ও কৃষকদের বিনা মুল্যে বীজ ও সার বিতরণ করেন বাঁশখালীতে দাবি আদায়ের লক্ষ্য স্বাস্থ্য সহকারীদের অনির্দিষ্ট কালের জন্য কর্মবিরতি

হেফাজত ইসলামের আমির জুনায়েদ বাবুনগরী ও মহাসচিব নুর হোসেন কাসেমী

  • সময় রবিবার, ১৫ নভেম্বর, ২০২০
  • ৪৭ পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক

হাটহাজারী(চট্টগ্রাম)
নানা জল্পনা কল্পনা ও উদ্বেগ উদকণ্ঠার অবসান গঠিয়ে হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি সম্মেলন গতকাল রবিবার হাটহাজারী দারুল উলুম মুঈনুল ইসলাম মাদ্রাসা শিক্ষা ভবনের মেশকাত শ্রেণী কক্ষে শান্তিপূর্ণ ভাবে অনুষ্ঠিত হয়। প্রথম পর্বে প্রতিনিধি সম্মেলন ও ২য় পর্বে কাউন্সিল অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেন হেফাজতে ইসলামের সিনিয়র নায়েবে আমির আল্লামা মহিবুল্লাহ বাবুনগরী। এ সম্মেলনকে কেন্দ্র কওে সকাল থেকে উৎসুক আলেম ওলমা মাদ্রাসার ভিতরে ও বাহিরে অবস্থা নিয়ে শুরু করেন।
জানা যায়, গতকাল সকাল নয় টা থেকে দেশের আট বিভাগের ৬৪ জেলার হেফাজতের আমন্ত্রিত প্রতিনিধিরা কেন্দ্রীয় সম্মেলনস্থলে উপস্থিত হয়। সম্মেলনে আগত প্রতিনিধিরা অভ্যার্থনাস্থলে এসে নাম তালিকা ভুক্ত করেন। পরে তাদেরকে শিক্ষা ভবনের ৩য় তলায় স্বেচ্ছাসেবকদল সুশৃ্খংল ভাবে সম্মেলনস্থলে পৌঁছে দেন। সকাল ১০ টায় প্রতিনিধি সম্মেলন শুরু হয়। সাড়ে ১০ টার দিকে সম্মেলন স্থলে উপস্থিত হন হেফাজত ইসলাম বাংলাদেশের সদ্য সাবেক মহাসচিব আল্লামা জুনায়েদ বাবুুনগরী। তিনি মঞ্চে উপবিষ্ট হলে সভায় তাকে স্বাগত জানান। পরে তিনি উদ্বোধনী বক্তব্যে হেফাজতের বিগত কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা করেন। এরপর উপস্থিত সিনিয়র নেতৃবৃন্দ আলোচনা করে নতুন কমিটি গঠনের জন্য সিনিয়র আলেমদের নিয়ে উপস্থিত সকলের সর্বসম্মিতি ক্রমে ১২ সদস্যের একটি সাবজেক্ট কমিটি গঠন করে দেন। সাবজেক্ট কমিটি দীর্ঘ আলোচনার পর ২টা ১১ মিনিটে আয়োজিত ২য় অধিবেশনে সভার সভাপতি আল্লামা মহিবুল্লাহ বাবুনগীর পক্ষে জামিয়া রহমানিয়া ঢাকার পরিচালক ও বেফাক এর মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক ১৫১ সদস্য বিশিষ্ট হেফাজত ইসলাম বাংলাদেশের নতুন কমিটি ঘোষনা করেন। নতুন কমিটিতে আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরীকে আমির এবং জামেয়া ইসলামিয়া বাড়িধারা মাদ্রাসার মহাপরিচালক আল্লামা নুর হোসেন কাসেমীকে মহাসচিব হিসাবে ঘোষণা করেন। কমিটিতে ৩২ জন সিনিয়র আলেমকে নায়েবে আমির, ৮ জন যুগ্ম-মহাসচিব এবং ১৮ জন সহকারি মহাসচিবের নামও ঘোষণা করা হয়। তাছাড়া আল্লামা মহিবুল্লাহ বাবুনগরীকে সংগঠনের প্রধান উপদেষ্টা করে ২৪ সদস্যে বিশিষ্ট উপদেষ্ঠা মন্ডলীর নাম ও প্রকাশ করা হয়।
হেফাজতের ১৫১ জনের পূর্ণাঙ্গ কমিটির মধ্যে ১২০ /২২ জনের নাম ঘোষণা করা হলেও আরো ৩০ জনের বিভিন্ন পদে নামের তালিকা পরে ঘোষনা করা হবে বলে উপস্থাপক উল্লেখ করেন। কমিটির ঘোষনার পর উপস্থিত আলেম ওলেমাগণ শুকরিয়া আদায় করেন। দূর দুরান্ত থেকে যেসব প্রতিনিধিরা এসে সম্মেলন সফল করেছেন তাদের প্রতি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করা হয়।
এদিকে হেফাজতের কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি সম্মেলনকে কেন্দ্র আইন শৃঙ্খলা রক্ষকারী বাহিনী ও গোয়ান্দা সংস্থার লোকজন সর্তক অবস্থায় ছিলেন। সাদা পোষাকধারী গোয়ান্দা সংস্থার লোকজন মাদ্রাসার ভিতরে দায়িত্ব পালন করেন। পোষকদারী ্আইনশৃঙ্কলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা হাটহাজারী বাসস্টেশন, বাজার, ডাকবাংলা চত্বর ও মেডিকেল গেইট এলাকায় অবস্থান করেন। সম্ভাব্য অপ্রীতিকর ঘটনার আংশকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়ন করাসহ থানার আশেপাশে জলকামান প্রস্তুত রাখা হয়েছিল।
উল্লেখ্য. গত ২০১০ সালে ১৯ শে জানুয়ারী ইসলামের ইমান আক্বিদা রক্ষায় অরাজনৈতিক সংগঠন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ নামের সংগঠনটির আত্মপ্রকাশ ঘটে। ২০১৩ সালে ১৩ দফা দাবিতে সারাদেশ ব্যাপী ব্যাপক আন্দোলনের মধ্য দিয়ে সংগঠনটি দেশজুড়ে আলোচনায় আসে। ২০১৩ সালের ৫ মে শাপলা চত্বর অবরোধের মাধ্যমে বিশ্বজুড়ে আলোচনায় উঠে আসে। হেফাজত ইসলাম প্রতিষ্ঠার পর থেকে সংগঠনের আমির হিসাবে দায়িত্ব পালন করে আসছিল হাটহাজারীর দারুল উলুম মুঈনুল ইসলাম মাদ্রাসার মহাপরিচালক আল্লামা শাহ আহমদ শফি। ২০২০ সালের ১৮ সেপ্টম্বর আমিরের ইন্তেকালের পর পদটি শূণ্য হলে হেফাজতের প্রতিনিধি সম্মেলনের বিষয়টি আলোচনায় আসে। প্রতিনিধি সম্মেলনের জন্য ১৮ সদস্যের একটি সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি গঠন করা হয়। এ কমিটির পক্ষ থেকে ৮ বিভাগের ৬৪ উপজেলার ৪শত প্রতিনিধিকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে বলে নিশ্চিত করেন হেফাজতের হাটহাজারী উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক মাওলানা জাকেরিয়া নোমান ফয়েজি। গতকাল সম্মেলনের পূর্ব মূহুর্তে বিগত কমিটি বিশেষ করে আল্লামা শফির অনুসারীদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছি কি না তার কাছে গণমাধ্যম কর্মীদের পক্ষ থেকে জানাতে চাইলে তিনি এ ব্যাপারে কোন মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানান।

খবরটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর..
কপিরাইট © ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | দৈনিক দেশ বার্তা
Theme Customized By TeqmoBD