1. bappy.ador@yahoo.com : admin :
  2. salehbinmonir@gmail.com : News Editor : News Editor
গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে স্ত্রীকে ডিভোর্স দিয়ে ২ মন জিলাপি বিতরণ এলাকায় চাঞ্চল্যের ঝড় - DeshBarta
রবিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১১:৫০ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
জমকালো আয়োজনে জিএম আইটির নবীন উদ্যোক্তা সম্মেলন অনুষ্ঠিত সীমান্ত থেকে তুলে নিয়ে বাংলাদেশী কিশোরকে নির্যাতনের পর হত্যা করেছে বিএসএফ দৈনিক আজকের বিজনেস বাংলাদেশ-এ যুক্ত হলো চট্টগ্রাম বিভাগের একঝাঁক মেধাবী সংবাদকর্মী রিক্সা চালক কে মধ‍্যযুগীয় কায়দায় গাছের সাথে বেধেঁ নির্যাতন: পুলিশের হাতে আটক ১ জন।  মাহে রবিউল আউয়াল মাসের গুরুত্ব ও ফজিলত।হাফিজ মাছুম আহমদ দুধরচকী। মাদক বিক্রিতে বাঁধা দেওয়ায় পুলিশের সোর্স পরিচয় দানকারী দুলাল মিথ্যা অভিযোগ করে হয়রানি করছে বলে জানায় মিরপুরবাসী বঞ্চিত নারী ও শিশু অধিকার ফাউন্ডেশন কুড়িগ্রাম রাজারহাট উপজেলা শাখা কমিটি অনুমোদন সন্দ্বীপে এক হাজার বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি উদ্বোধন এসোসিয়েশন অব এলিয়েন্স চট্টগ্রাম ক্লাব এর উদ্যোগে সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের মাঝে খাবার বিতরণ রাহবার মনে পড়ে তুমায়!—হাফিজ মাছুম আহমদ দুধরচকী

গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে স্ত্রীকে ডিভোর্স দিয়ে ২ মন জিলাপি বিতরণ এলাকায় চাঞ্চল্যের ঝড়

  • সময় রবিবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ৬৫ পঠিত

আমিরুল ইসলাম কবিরঃ

গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে গোলাম মোস্তফা নামে এক ব্যক্তি তার স্ত্রীকে ডিভোর্স দিয়ে দুই মণ জিলাপি বিতরণ করেছেন। এ ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক আলোচনার সৃষ্টি হয়েছে।

রোববার ১২ ডিসেম্বর সকালে পলাশবাড়ী উপজেলার ৪নং বরিশাল ইউনিয়নের ভবানীপুর গ্রামে স্থানীয় শাহ্ আলম কাজীর উপস্থিতিতে ডিভোর্স সম্পন্ন হয়। গোলাম মোস্তফা ওই গ্রামের ডাক্তার নজির হোসেনের ছেলে। তাদের সংসারে মেঘলা আক্তার কুলসুম নামে ১০ বছরের একটি কন্যা সন্তান রয়েছে।

স্থানীয়রা জানায়,দীর্ঘ ১২ বছর আগে একই গ্রামের বিউটি বেগমের সঙ্গে গোলাম মোস্তফার বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে কয়েকবছর তাদের সংসার ভালোই চলছিলো। এর মধ্যে তাদের সংসারে একটি কন্যা সন্তানের জন্ম হয়। পরে তাদের মধ্যে কারণে অকারণে মনমালিন্য ও ঝগড়া বিবাদ চলায় শুরু হয় দাম্পত্য কলহ। এ কারণে আজকে দুজনের সম্মতিতে তারা ডিভোর্সের সিদ্ধান্ত নেয় এবং সকালে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের উপস্থিতিতে ওই ইউনিয়নের নিকাহ্ রেজিস্টার মোঃ শহর আলম সরকার এ ডিভোর্স বা তালাক সম্পন্ন করেন।

এ ব্যাপারে গোলাম মোস্তফা বলেন,স্ত্রী আমার অবাধ্য ছিল। সে জীবনটা অতিষ্ট করে তুলেছিল। অতিষ্ট হয়ে আজকে এমন সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হয়েছি। স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতিতে দুজনের সম্মতিতে আমাদের ডিভোর্স হয়েছে। আমি মুক্ত হয়েছি।

তাই আজকে খুশি হয়ে একই গ্রামের চারমাথার দোকানী শফিক ভাইকে চিনি ও গুড়ের ২ মন জিলাপির ওয়ার্ডার দিয়ে গ্রামের শিশু সহ আবাল বৃদ্ধ বনিতা মানুষের মাঝে এই জিলাপি বিতরণ করেছি। গ্রামের সকল লোককে খাওয়াতে আরও জিলাপির প্রয়োজন হলে তাও বিতরণ করব ইনশাআল্লাহ।√#

খবরটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর..
কপিরাইট © ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | দৈনিক দেশ বার্তা
Theme Customized By TeqmoBD